একটি সাম্প্রতিক ভৌতিক ঘটনা

এক অদ্ভুত ঘটনা ঘটে গেল আমাদের আড্ডার জায়গায়। গত রবিবার ,২২ জুলাই, ২০১২ রাত এর ঘটনা । আমার এলাকায় আমরা যেইখানে আড্ডা দেই সেইটা একটা নির্মাণাধীন এপার্টমেন্ট । সেই এপার্টমেন্ট এ একজন শ্রমিক ৫ তলার ছাদে প্রস্রাব করছিল…সে তার প্রস্রাব যেখানে করছিল সেইখানে আরও একজন শ্রমিক পাশে দাড়িয়ে কথা বলছিল। হঠাৎ প্রস্রাব শেষ করে শ্রমিকটি তার সাথের শ্রমিক কে হঠাৎ কোন কথা ছাড়াই একটা ঘুষি মেরে বসে । ঘুষি খেয়ে অন্য শ্রমিক পরে যায়। তখন যেই শ্রমিক ঘুষি মারে সে আরও কয়েক জন এর সাথে খারাপ ব্যবহার শুরু করে। যদিও সবাই তার থেকে বড় ছিল। তখন আমাদের এক বড় ভাই , আরিফ ভাই কে ডাকা হয়। সে গিয়ে সেই শ্রমিক কে জিজ্ঞেস করে তোমার কি হইসে, সেই শ্রমিক আরিফ ভাই কে বলে তোকে বলতে হবে? তখন আরিফ ভাই তার আচরণ দেখে ব্যাপারটা আন্তাজ করতে পেরে জিজ্ঞাস করে, তুই কে? তখন শ্রমিকের মুখ থেকে উত্তর বের হয় -আমি জ্বীন। তখন আরিফ ভাই বলে তুই কি চাস? জ্বীন বলে আমার বড় ভাই ওর ক্ষতি করতে চায়, কিন্তু আমি তাকে বাঁচাতে ওর উপর ভর করি। আরিফ ভাই তখন জ্বীন কে বলে তোরা কয় ভাই? জ্বীন বলে আমরা সাত ভাই,এখানে আমরা ৫ ভাই আছি। আরিফ ভাই বলে বাকি ২ ভাই কই? জ্বীন বলে বাকি ২ ভাই রংপুর এর একটা বট গাছে আছে। তখন আরিফ ভাই আবার বলে তুই যাবি না? জ্বীন বলে না,আমি যাব না ওর সাথে থাকব যাতে কেও ওর ক্ষতি করতে না পারে…আরিফ ভাই তখন বলে ওই হুজুর কে ডাক দে ত…জ্বীন বলে হুজুর কে ডাকবি না,আমি যাচ্ছি তবে এই এপার্টমেন্ট থেকে আমি রোজার ঈদ এর আগে, না হলে ঈদ এর পর কাওকে আমার সাথে নিয়ে যাব। বলেই জ্বীন এপার্টমেন্ট এর টিন এর দেয়াল এ জোরে আঘাত করে চলে যায়। তখন শ্রমিক টি নড়ে উঠে বলে আমার হাত এ এতো বাথা ক্যান? পরের দিন সেই শ্রমিক কে তার গ্রামের বাড়িতে পাঠিয়ে দেয়া হয়। এখন আর আমরা কেও সন্ধ্যার পর কোন শ্রমিক বা কেও ছাদে উঠি না। সবাই আতংকে আছে কাকে আবার জ্বীন নিয়ে যায়…

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.